অস্ত্রের মুখে প্রবাসীর স্ত্রীকে ধর্ষণ, যুবলীগ নেতা গ্রেফতার

নোয়াখালী প্রতিনধি:

নোয়াখালীর চাটখিল উপজেলায় অস্ত্রের ভয় দেখিয়ে এক প্রবাসীর স্ত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ অভিযোগে বুধবার দুপুরে যুবলীগ নেতা মজিবুর রহমান শরীফকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।
শরীফ নোয়াখলা গ্রামের রফিক উল্যার ছেলে। সে এলাকার চিহ্নিত সন্তাসী, মাদক ব্যবসায়ী ও ছিনতাইকারী। তার রয়েছে একদল সন্ত্রাসী ও ক্যাডার বাহিনী। শরীফ নোয়াখলা ইউনিয়ন  (পশ্চিম) যুবলীগ নেতা।

মামলার বিবরণে জানা যায়, সন্ত্রাসী শরীফ ভোর ৫টার দিকে কৌশলে ওই প্রবাসীর ঘরের দরজা ভেঙে ঘরে ঢুকে। এরপর অস্ত্রের ভয় দেখিয়ে ২ শিশুসন্তানের সামনে তাকে ধর্ষণ করে। ধর্ষণের ঘটনা কাউকে জানালে তাকে ও তার সন্তানদের হত্যার হুমকি দিয়ে চলে যায়।
এলাকাবাসী জানান, শরীফ একটি ক্যাডার বাহিনীর প্রধান। সে সব সময় অস্ত্র নিয়ে এলাকায় ত্রাসের রাজত্ব কায়েম করে। ভয়ে মানুষ তার অপকর্মের প্রতিবাদ করার সাহস পায় না। এছাড়া শরীফ মাদক ব্যবসার সঙ্গে জড়িত বলে এলাকাবাসী জানান।
এ ঘটনায় প্রবাসীর স্ত্রী থানায় হাজির হয়ে শরীফকে আসামি করে থানায় মামলা করেন। পুলিশ অভিযান চালিয়ে স্থানীয় ইয়াছিন হাজীর বাজার থেকে দুপুরে তাকে গ্রেফতার করে।
চাটখিল থানার ওসি (তদন্ত) দুলাল মিয়া জানান, শরীফের বিরুদ্ধে চাটখিল থানায় ধর্ষণ, চাঁদাবাজি, টেন্ডারবাজি, অস্ত্র, ছিনতাইসহ ৭টি মামলা রয়েছে। পুলিশ ওই নারীকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য নোয়াখালী সদর হাসপাতালে প্রেরণ করেছে।