উখিয়ায় জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে প্রতিপক্ষ হামলায় ৩ জন আহত

নিজস্ব প্রতিবেদক:

উখিয়া উপজেলার রত্নাপালং ইউনিয়নের করইবনিয়া গ্রামে জায়গা জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে প্রতিপক্ষ জবরদখলকারীরা এক অসহায় পরিবারের উপর অতর্কিত হামলা চালিয়েছে।

এ সময় প্রতিপক্ষের হামলায় নুরুল হক প্রকাশ জাফর আলমের স্ত্রী, ২ কন্যা গুরুতর আহত হয়েছে। স্থানীয় লোকজন আহতদের উদ্ধার করে উখিয়া হাসপাতালে ভর্তি করেছে।

এ ঘটনায় উখিয়া থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করার প্রস্তুতি চলছে। ২৩ আগস্ট (রবিবার) সকাল সাড়ে ৮টার দিকে এ ঘটনাটি ঘটে।

জানাগেছে, উপজেলার রত্নাপালং মৌজার বিএস খতিয়ান নং ২২৭, বিএস দাগ নং ১০২৮৩ এর আন্দর ০.৪০০০ একর চাষাবাদের জমি নিয়ে নুরুল হক প্রকাশ জাফর আলম এবং একই এলাকার সব্বির আহমদের ছেলে শাহজাহান, মৃত মকবুল আলীল ছেলে রশিদ আহমদ, মোহাম্মদ নুরু, কবির আহমদ গংদের মধ্যে দীর্ঘদিন থেকে বিরোধ চলে আসছিল।

এ ঘটনায় নুরুল হক প্রকাশ জাফর আলম ২০১৫ সালে বিজ্ঞ সহকারী জজ আদালত কক্সবাজারে একটি মামলা দায়ের করেন। আদালত ১১ এপ্রিল ২০১৭ ইংরেজি তারিখে নুরুল হক প্রকাশ জাফর আলমের পক্ষে বায় প্রদান করেন।

এরপর থেকে উক্ত জমিটি সে ভোগ দখল করে আসছিল। চলতি মৌসুমে সে তার দখলিয় জমিতে চাষাবাদও করেন। কিন্তু প্রতিপক্ষ জবর দখলকারীরা আদালতের আদেশ অমান্য করে রবিবার অসহায় নুরুল হক প্রকাশ জাফর আলমের বাড়িতে দা, কিরিচ, লাটি-শোটা নিয়ে হামলা চালায়।

ওই সময় জাফল আলম ও তার ছেলে আব্দুল হাকিম বাড়িতে না থাকায় সন্ত্রাসীরা জাফর আলমের স্ত্রী আয়েশা বেগম ও যুবতী মেয়ে কুলসুমা বেগম এবং ইয়াছমিন আকতার জোসনাকে মারাক্তকভাবে আঘাত প্রাপ্ত করে।

বর্তমানে তারা উখিয়া হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে বলে জানান জাফর আলমের ছেলে আব্দুল হাকিম। সে আরো জানায়, এ ঘটনায় সে বাদী হয়ে থানায় অভিযোগ দায়েরের প্রস্তুতি নিচ্ছে।

এ ব্যাপারে উখিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ (তদন্ত) নুরুল ইসলাম মজুমদার বলেন, এ ধরণের অভিযোগ এখনও আমাদের হাতে আসেনি। তবে অভিযোগ পাওয়া গেলে তদন্ত পূর্বক প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

বিডি/কক্স