‘খালেদা-সরকার জড়িত ছিলো বলেই আলামত নষ্ট করেছিল’

বিডিদর্পণ ডেস্ক:

বিএনপি’র প্রত্যক্ষ মদদ ছাড়া ২১ আগস্টের হামলার ঘটনা ঘটতো না উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, খালেদা ও তারেক রহমানের জড়িত থাকার বিষয়টি তাদের বক্তব্য থেকেই স্পষ্ট।

শুক্রবার (২০ আগস্ট) সকালে নৃশংসতম সেই হামলার দিনে আওয়ামী লীগ আয়োজিত ভার্চুয়াল আলোচনা সভায় এ কথা বলেন তিনি।

২০০৪ সালের ২১ আগস্ট হামলায় নিহতদের স্মরণে সকালে বঙ্গবন্ধু অ্যাভিনিউয়ে, আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে শহীদ বেদীতে ফুল দেন নেতা-কর্মীরা।

এবার করোনার প্রেক্ষাপটে পুরো আয়োজন সম্পন্ন হয় ভার্চুয়াল পরিসরে। কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে শীর্ষ নেতারা ও গণভবন থেকে অনলাইনে যুক্ত হয়েছিলেন দলীয় প্রধান শেখ হাসিনা।

আলোচনায় সরকার প্রধান বলেন, এতোবড় নৃশংস হামলার পরে, সংসদে কোনো আলোচনারও সুযোগ দেয় নি তৎকালীন বিএনপি সরকার। খালেদা জিয়ার সরকার এ ঘটনায় জড়িত ছিলো বলেই, তারা সব আলামত নষ্ট করেছিল।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেন, ২১ আগস্টে গ্রেনেড হামলা পূর্বে খালেদা জিয়ার বক্তৃতা ছিল; শেখ হাসিনা প্রধানমন্ত্রীত্ব দূরের কথা বিরোধীদলের নেতাও কোনদিন হতে পারবে না।

এ ভবিষ্যৎবাণী খালেদা জিয়া কীভাবে দিয়েছিল, কারণ চক্রান্ত ছিল; তারা আমাকে হত্যা করে ফেলবে। তাহলে তো আমি কিছুই হতে পারবো না। এটাই তাদের চক্রান্ত ছিল। নেতাকর্মীরা মানবঢাল তৈরি করে সেদিন আমাকে রক্ষা করেছিল।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, বিএনপি সরকার যদি জড়িত নাই থাকে, তাহলে তারা আলামতগুলো কেন নষ্ট করলো।

আমরা যখন এটার উপর আলোচনা করতে চাইলাম, এটা রেজ্যুলেশন নিতে চাইলাম, বিরোধীদলের পক্ষ থেকে খালেদা জিয়া সেটা করতে দেয়নি বা এটার উপর আলোচনা করতে দেয়নি। সরকারের মদদ না থাকলে এভাবে ২১ আগস্টের গ্রেনেড হামলা হতে পারে না।

তিনি আরও বলেন, তারা যে দুর্নীতির বিষবৃক্ষ রচনা করে গেছেন সারা বাংলাদেশে, তার কুফল বাংলাদেশ ভোগ করছে। আমরা সরকারের আসার পর এক করে সেগুলো ধরছি।

সূত্র: সময় টিভি

বিডি/জা/রা