সৌদিতে থাকা রোহিঙ্গাদের পাসপোর্ট দেবেনা বাংলাদেশ: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

অনলাইন ডেস্ক:

পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ কে আব্দুল মোমেনসৌদিতে অবস্থান করা রোহিঙ্গাদের মধ্যে কারও পুরনো বাংলাদেশি পাসপোর্ট থাকলে কেবল সেটিই পুনরায় ইস্যু করা হবে। তাছাড়া দেশটিতে থাকা রোহিঙ্গাদের কাউকে পাসপোর্ট দেবে না বাংলাদেশ।

গত বৃহস্পতিবার সাংবাদিকের সঙ্গে আলাপকালে এ কথা জানিয়েছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী জানান, সৌদিতে থাকা রোহিঙ্গাদের বাংলাদেশি পাসপোর্ট দেওয়ার ব্যাপারে চাপ রয়েছে। তবে চাপ থাকলেও পুরনো বাংলাদেশি পাসপোর্ট না থাকলে বা বাংলাদেশে কখনো থাকার প্রমাণ দেখাতে না পারলে কাউকে বাংলাদেশি পাসপোর্ট দেওয়া হবে না বলে জানিয়েছেন তিনি।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী আব্দুল মোমেন বলেন, আশির দশকে অনেক রোহিঙ্গাকে আশ্রয় দিয়েছিল সৌদি আরব। এই রোহিঙ্গাদের ছেলে-মেয়েরা সেখানেই জন্ম নিয়েছে এবং বেড়ে উঠেছে। তারা বাংলাও জানে না।

বাংলাদেশের সঙ্গে তারা সম্পর্কিত নয়। এখন সৌদি সরকার তাদের জন্য পাসপোর্ট দিতে বলছে। কারণ সৌদি আরব তার দেশে কোনো ‘রাষ্ট্রহীন’ লোক রাখতে চায় না।

ড. মোমেন আরও জানান, সৌদি আরবের জেলে ৪৬২ জন রোহিঙ্গা আছেন। মিশন থেকে যাচাই-বাছাই করে দেখা গেছে, তাদের মধ্যে ৭০-৮০ জনের বাংলাদেশের পাসপোর্ট আছে। কেবল এই পাসপোর্টধারীদের ফেরত আনা যেতে পারে।
বিডি/আ/রো/